Breaking News

জেলা , পুরসভা স্তরেও তৃণমূল ত্যাগের হিড়িক

At the district and municipality level also, there is a rush to leave the grassroots

ইস্টার্ন টাইমস , কলকাতা: তৃণমূলে ইস্তফার হিড়িক। দল ছাড়লেন উত্তর ২৪ পরগনা জেলা পরিষদের শিক্ষা, তথ্য-সংস্কৃতি ও ক্রীড়া দফতরের কর্মাধ্যক্ষ ফিরোজ কামাল গাজি ওরফে বাবু মাস্টার।

ভেড়ি দখল নিয়ে তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষ এবং সন্দেশখালিতে ২ বিজেপি কর্মী খুনের ঘটনায় নাম উঠে আসে বাবু মাস্টারের। দলের একাংশ তাঁকে মিথ্যা মামলায় ফাঁসাচ্ছে বলে দু দিন আগে অভিযোগ করেন এই তৃণমূল নেতা। এরপর আজ দলত্যাগের ঘোষণা। একইসঙ্গে বিজেপিতে যোগদানের ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে পুরুলিয়াতেও তৃণমূলে ভাঙন। দল ছাড়লেন রঘুনাথপুর পুরসভার প্রাক্তন পুরপ্রধান ভবেশ চট্টোপাধ্যায়। জেলা তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকেও ইস্তফা দিয়েছেন শুভেন্দু অনুগামী এই নেতা।

সম্প্রতি পুরুলিয়ায় শুভেন্দুর দুটি সভাতেও হাজির ছিলেন রঘুনাথপুর পুরসভার প্রাক্তন পুর প্রধান।

এদিকে অমিত শাহর সভার আগে খড়গপুর শহরজুড়ে শুভেন্দুর সমর্থনে পোস্টার পরল শুক্রবার। “মেদিনীপুরের ভূমিপুত্র শুভেন্দু অধিকারী” বলে উল্লেখ করা হয়েছে পোস্টারের।

এছাড়াও এদিন আসানসোল পুরসভার ৮৫ নম্বর ওয়ার্ডে শুভেন্দুর সমর্থনে “আমরা দাদার অনুগামী” লেখা পোস্টার দেখা যায় নতুন করে। ব্যারাকপুরের লালকুঠি এলাকাজুড়েও শুভেন্দুর সমর্থনে পোস্টার। বাদুড়িয়ার যদুরহাটি পুরাতন বাজারেও আজ সকালে শুভেন্দুর সমর্থনে পোস্টার দেখা যায়।

সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ঘটনা হলো তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের খাসতালুক দক্ষিণ কলকাতার ৬টি জায়গায় শুভেন্দুর সমর্থনে হোর্ডিং ও পোস্টার লাগানো হয়েছে। শুক্রবার সকালে রাসবিহারী, টালিগঞ্জ, বেহালা, যাদবপুর, গোলপার্ক, গড়িয়াহাটে শুভেন্দুর ছবি দেওয়া হোর্ডিং-পোস্টারে ছেয়ে যায়। পোস্টারে লেখা নতুন বাংলার সারথি।

Vinkmag ad

Eastern Times

Read Previous

মুস্তাক আলির কঠিন গ্রুপে বাংলা

Read Next

আপাত স্বস্তিতে বঙ্গ বিজেপি নেতারা

Leave a comment

You have successfully subscribed to the newsletter

There was an error while trying to send your request. Please try again.

easterntimes will use the information you provide on this form to be in touch with you and to provide updates and marketing.